হার মানিয়েছে সিনেমার কাহিনীকেও। পছন্দের মানুষের সঙ্গে বিয়ে দিতে নারাজ পরিবার, তাই বিষপান করলেন তরুণী। এদিকে হাসপাতালে প্রেমিকাকে মৃত্যুশয্যায় দেখে সেখানেই বিষপান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন তরুণ।
ভারতের তেলেঙ্গানা রাজ্যে ভিকারাবাদে চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানিয়েছে দ্য নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। এই ঘটনার পর মোহাম্মদ নওয়াজ (২৩) ও রেশমা বেগমের (২০) পরিবার হাসপাতালেই তাদের বিয়ের আয়োজন করেন।
এই জুটির বিয়ের ভাইরাল ছবিতে দেখা যায়, বধূ সাজে হাসপাতালের বিছানায় নাকে অক্সিজেনের নল পরানো রেশমি । আর বর নওয়াজ হুইলচেয়ারে বসা, চোখেমুখে তীব্র যন্ত্রণার ছাপ।
প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নওয়াজ দূরসম্পর্কের ভাই হওয়ায় বিয়ে না দেওয়ার আশঙ্কা ছিল রেশমির পরিবারের। তাই আর কোনো উপায় নেই ভেবে প্রাণ ত্যাগের সিদ্ধান্ত নেয় এই তরুণী।
রেশমির এক আত্মীয়া বলেন, ’এটা সত্যি যে আমরা তার বিয়ের জন্য পাত্র খুঁজতে শুরু করেছিলাম, কিন্তু সে কখনোই নওয়াজের কথা আমাদের বলেনি। আগে জানলে আমরা কখনোই এ ঘটনা ঘটতে দিতাম না।’
এ ঘটনায় কোনো মামলা হয়নি বলে জানান ভিকারাবাদ জেলা পুলিশ প্রধান অন্নপূর্ণা। তিনি বলেন, ’তারা নিজেরাই সমঝোতার মাধ্যমে সব কিছু ঠিক করে নিয়েছে।’
তাদের দুজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় হাসপাতালেই বিয়ের আয়োজন করে রেশমা-নওয়াজের পরিবার। সেখানে উপস্থিত হন তাদের আত্মীয়রাও।