অনন্ত জলিলকে ঢাকা উত্তরের মেয়র হিসেবে দেখতে চান ভক্ত-অনুরাগীরা
মেয়র আনিসুল হককে নিয়ে দীর্ঘ ঐ লেখায় অনন্ত জলিল মেয়র থাকাকালীন আনিসুল হকের বিভিন্ন কাজের প্রশংসা করেন। তিনি সেখানে গুলশান-বনানী-এয়ারপোর্ট রোডের রাস্তার উন্নয়নের কথা উল্লেখ করে আনিসুল হকের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। এছাড়া গুলশান-বনানী-বারিধারা এলাকায় চলাচলের জন্য শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত বাস ঢাকার চাকা, বিভিন্ন স্থানে মানুষের কল্যাণে পাবলিক টয়লেট, রাস্তার মাঝখানের আইল্যান্ডে দৃষ্টিনন্দন গাছ লাগানো, শ্যাওড়াপাড়া থেকে মিরপুর বাংলা কলেজের রাস্তা প্রশস্ত করা, বিভিন্ন অবৈধ দখল উচ্ছেদসহ নানা কাজ উল্লেখ করে মেয়র আনিসুল হককে অগ্রযাত্রার মহানায়ক নামে আখ্যা দিয়েছেন।


মেয়রের মৃত্যুর পর গত এপ্রিলে লেখা এই পোস্ট আবার শেয়ার দিয়ে আলোচনা তুলেন অনন্ত জলিল। সেই পোস্টের নিচে একের পর এক ভক্তদের মন্তব্য আসা শুরু করে। সেখানে অনেক ভক্ত-অনুরাগীরাই তাকে ঢাকার উত্তরের মেয়র হওয়ার দাবি জানান। তারা দাবি করেন, অনন্তকে মেয়র হিসেবে পাওয়া গেলে, তিনি একটি নিরাপদ ও সুন্দরভাবে বসবাসের যোগ্য শহর উপহার দিবেন।

সাকলাইন রাসেল নামে অনন্তর এক ভক্ত ঐ পোস্টের নিচে লিখেছেন, ’আমরা আপনাকে নেক্সট ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র হিসেবে দেখতে চাই। আপনার মতো একজন অনেস্ট লিডারের বড়ই অভাব’।

স্বপ্নীল রিফাত নামে একজন লিখেছেন, ’মেয়র আনিসুর রহমান (হক) এর অভাবটা পূরণ করতে ছাইলে (চাইলে) আনন্ত (অনন্ত) জলিল এর প্রয়োজন। এই আমার বিশ্বাস...’।

তাশফিয়া তাসনিম নামে অনন্তের আরেকজন ভক্ত লিখেন, ’আপনাকে মেয়র হিসেবে দেখতে চাই’।

এদিকে অগণিত ভক্ত-অনুরাগীর এই ভালোবাসার উত্তরে নিজের ফ্যান পেইজে অনন্ত জলিল কৃতজ্ঞতা জানিয়ে লিখেন, ’আমার অনেক শুভাকাঙ্ক্ষী চাইছেন আমাকে মেয়র হিসেবে দেখতে। সেই বন্ধুদের বলছি, এ বক্তব্য আমার প্রতি আবেগের বহিঃপ্রকাশ। বন্ধুরা, আমি কখনো রাজনীতি করিনি এবং করবোও না। কারণ আমি রাজনীতির যোগ্য নই। দেশের অনেক যোগ্য রাজনীতিবিদ আছেন। তারাই আসবেন রাজনীতিতে এবং দেশকে উন্নতির শিখরে নিয়ে যাবেন আমি আশা করি। আর তাদের মাঝ থেকে একজন যোগ্য রাজনীতিবিদ উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র হয়ে আমাদের প্রিয় ঢাকাকে নিরাপদ বাস যোগ্য ঢাকা গড়ে তুলবেন। সদ্য প্রয়াত আনিসুল হক ভাইয়ের অবাস্তবায়িত স্বপ্ন পূরণ করবেন ইনশাআল্লাহ’।

নিজের এ বক্তব্যের মাধ্যমে ভক্তদের এ ইচ্ছাকে সম্মানের সঙ্গে নাকচ করে দিলেন অনন্ত।

উল্লেখ্য অল্প কয়েকটি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেই আলোচিত চিত্রনায়কে পরিণত হওয়া অনন্ত জলিল বেশ কয়েক বছর যাবত ধরেই নিজেকে চলচ্চিত্র অঙ্গন থেকে দূরে রেখেছেন।

বর্তমানে তিনি নিজের ব্যবসায় সময় দেওয়ার পাশাপাশি ধর্ম প্রচারে বেশি মনোযোগী হয়েছেন।

তার জীবনযাত্রা ও পোশাক-আশাকেও এনেছেন আমূল পরিবর্তন। ইদানিং তিনি তাবলিগ জামাতেও বেশ সময় দিচ্ছেন বলেও জানা যায়।nayadiganta