ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করা মামলায় কিছুই হবে না উল্লেখ করে পটুয়াখালী-৩ (গলাচিপা-দশমিনা) আসনে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী সাবেক আওয়ামী লীগ নেতা গোলাম মাওলা রনি বলেছেন, এসব হয়রানিকে আমি পাত্তা দিচ্ছি না। তারা যদি আমাকে অ্যারেস্ট করতে চায় করবে, আমি অ্যারেস্ট হওয়ার জন্য বসে আছি।
শুক্রবার (২২ ডিসেম্বর) দুপুরে নিজের ফেসবুক পেজ থেকে দেওয়া এক ভিডিও বার্তায় এসব কথা বলেন তিনি।
ভিডিওতে রনি বলেন, প্রিয় গলাচিপা ও দশমিনাবাসী আপনারা সবাই অবগত আছেন আমার বিরুদ্ধে গলাচিপা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এই মামলাটি বেআইনি, উচ্চ আদালতে এই মামলা টিকবে না এবং এতে আপনাদের এবং আমাদের কিছুই হবে না। শুধু মাত্র হয়রানি ছাড়া কিছুই না। আমি ব্যক্তিগত ভাবে এই হয়রানিকে পাত্তা দিচ্ছি না। আমাদের বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের নেতাকর্মীরাও এ মামলাকে পাত্তা দিচ্ছে না। আমাদের ভয় দেখানোর জন্য তাদের যে অপচেষ্টা তা ঘৃণার সঙ্গে প্রত্যাখ্যান করলাম। তারা যদি আমাকে অ্যারেস্ট করতে চায় করবে, আমি অ্যারেস্ট হওয়ার জন্য বসে আছি।
প্রসঙ্গত, ফোনালাপ ফাঁসের ঘটনায় বৃহস্পতিবার (২০ ডিসেম্বর) রাতে গলাচিপা থানায় গোলাম মাওলা রনিসহ ৬ জনের নামে বিরুদ্ধে গলাচিপা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়ের করেন আওয়ামী লীগের নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির যুগ্ম-আহ্বায়ক ও গলাচিপা মহিলা কলেজের সহযোগী অধ্যাপক মেহেদী মাসুদ।
মামলার বিবরণে উল্লেখ করা হয়, গত ১৫ ডিসেম্বর দুপুরে গলাচিপা টিএন্ডটি সড়কে গোলাম মাওলা রনির স্ত্রীসহ তার পরিবারের সদস্যরা আত্মঘাতি ঘটনা ঘটিয়ে আইনশৃঙ্খলার অবনতি ও নিরাপত্তা বিঘ্নিত করে, যা মোবাইলে কথোপকথনের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে ভাইরাল হয়। এতে জনমনে ভীতির সৃষ্টি করেছে, যা আসন্ন নির্বাচনে বিরূপ প্রভাব পড়ার আশঙ্কা রয়েছে।
বিবরণে আরও বলা হয়, ওই আত্মঘাতি ঘটনা বিভিন্ন ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ায় প্রচার ও প্রকাশিত হয়। বাদি যেহেতু পটুয়াখালী-৩ (গলাচিপা-দশমিনা) আসনের আওয়ামী লীগের নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির যুগ্ম-আহবায়ক সেহেতু তার সম্মান খুণ্ন হয়েছে।
গলাচিপা থানার ওসি আখতার মোর্শেদ জানান, বাদীর অভিযোগের ভিত্তিতে ডিজিটিাল নিরাপত্তা আইন-২০১৮ এর ২৫/৩১/৩৫ ধারায় মামলাটি নেয়া হয়েছে।
উল্লেখ্য, পটুয়াখালী-৩ (গলাচিপা দশমিনা) আসনে গোলাম মাওলা রনির প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে আওয়ামী লীগ থেকে এস এম শাহজাদা সাজু নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচন করছেন। সাজু প্রধান নির্বাচন কমিশনার একে এম নূরুল হুদার ভাগনে।

আরো পড়ুন

Error: No articles to display