শিক্ষাবিদ ড. মোহাম্মদ কায়কোবাদ বুধবার এ প্রতিবেদককে বলেন, আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মান অবশ্যই খারাপ। শুধু এবার নয়। প্রতিবারই যখন বিশ্বের বা এশিয়ার র‌্যাংকিং করা হয়, তখনই এটা ধরা পড়ে। সাংহাই বিশ্ববিদ্যালয় একটা র‌্যাংকিং করে, সেটাও ভালো। কিন্তু কোনো র‌্যাংকিংয়েই আমাদের দেশের কোনো বিশ্ববিদ্যালয় জায়গা পায় না। আমরা পৃথিবীর অষ্টম বৃহত্তম জনবহুল দেশ। পৃথিবীর এক হাজার ভাগের ২৪ ভাগ মানুষ এখানে বাস করে। এই জনবহুল দেশটির কোনো বিশ্ববিদ্যালয় মানসম্পন্ন বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে স্বীকৃতি পাচ্ছে না, এটাতো আমাদের জন্য লজ্জার বিষয়।
তিনি আরো বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর এই অবস্থার সবচেয়ে বড় কারণ হলো শিক্ষায় রাজনৈতিক প্রভাব। তারপর যে বিষয়গুলো উঠে এসেছে তা হলো: গবেষণা, অবকাঠামো, বাজেট, যোগ্য শিক্ষক এবং ছাত্র শিক্ষক অনুপাত প্রভৃতি। মানের এই অবনমনের জন্য প্রধানত দায়ী শিক্ষকরা। শিক্ষার নেতৃত্বের সংকট। এখানে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য হতে হলে রাজনীতিবিদদের পিছনে ঘুরতে হয়। শিক্ষকরা পড়াবেন বা গবেষণা করবেন কখন? তারা তো রাজনীতিবিদদের পিছনে ঘুরে সময় শেষ করে দেন। এখানে শিক্ষাবিদ হয়ে লাভ নেই। রাজনীতি করলে বিশ্ববিদ্যালয়ে বড় পদ পাওয়া যায়।
তার মতে, আমাদের দেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর উপাচার্যদের মান কেমন, তা সহজেই বোঝা যায়। আমাদের ১০ উপাচার্য এবং ভারতের ১০টি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের নাম লিখে গুগলে সার্চ দিন, তাহলে বুঝতে পারবেন বাস্তব অবস্থা।
সূত্র: জাগোনিউজ