বড় বড় রেস্টুরেন্ট বা ফাস্টফুড শপে অনেকে দামি বার্গার নিশ্চয়ই খেয়েছেন। কিন্তু এবার এক শেফ বানালেন দারুণ এক বার্গার।
এটাকে পৃথিবীর সবচেয়ে দামি বার্গার বলা হচ্ছে। বড় একটা কামড় বসাতে গুনতে হবে ২০০০ পাউন্ডের মতো যা ২ লাখ ৮ হাজার ৭৩১ টাকার সমান।
শেফ দিয়েগো বুইক এর কারিগর। মুখে পানি আনা এ বার্গারে রয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে দামি ও সুস্বাদু ওয়াগু এবং ব্ল্যাক আনগুস গরুর মাংস, জিনে ভেজানো গলদা চিংড়ি, হাঁস বা রাজ হাঁসের লিভার থেকে তৈরি ফয়ি গ্রাস, অতি দামি ও স্বাদের ট্রাফল, পনির, জাপানি টমেটো আর ক্যাভিয়ার। এর ওপর একটি সস দেওয়া হবে যা বানানো হয়েছে ৩৫টি গলদা চিংড়ি থেকে। এ সবকিছুর দুই পাশে দেওয়া হয়েছে ব্রিয়োচে বান। বার্গারের দুই পাশের এই দুই বানও সাজানো হয়েছে স্বর্ণের পাতা দিয়ে। সব মিলিয়ে এর দাম পড়েছে ১৭৮৫ পাউন্ড।
‌এ বার্গার খেতে গেলে আরো কিছু উপভোগ করতে পারবেন। আছে ফ্রেঞ্চ লেটিস, হ্যাম, জ্যামাইকার ব্লু মাউন্টেন কফি, ভ্যানিলা, জাফরান আর জাপানি সয় সস।
নেদারল্যান্ডসের সাউথ অব হাস্টনের দ্য হাগ রেস্টুরেন্টের শেফ দিয়েগো। তর মতে, এই দামি বার্গারটি দারুণ স্বাদের। অনেকের কাছে সবচেয়ে সুস্বাদু বার্গার।
তিনি নিজেই জীবনের সেরা বার্গার খেয়েছিলন লন্ডনের বায়রনে। জানালেন, ওই বার্গারে ছিল ব্রিয়োচি বান, শুকনো বেকন, বায়রন সস, টমেটো, রেড অনিয়ন আর সিডার। এর দাম পড়েছিল মাত্র ১৪ পাউন্ড।
এই বার্গারটি শেফের অনবদ্য গবেষণার ফল। এখন পর্যন্ত শেফের রেস্টুরেন্টের মেনুতে আসেনি এই বার্গার। তবে অনেকেই বিশেষ অর্ডারে চেখে দেখেন। সূত্র : এমিরেটস

News Page Below Ad